গোপনাঙ্গ কালো হয়ে গেলে করণীয় কী ? - Ask Answers
Ask Answers এ আপনাকে স্বাগতম। এখানে আপনি প্রশ্ন করতে পারবেন এবং সাইটের অন্যান্য সদস্যদের কাছ থেকে উত্তর পেতে পারবেন। বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন

23 বার দেখা হয়েছে
"স্বাস্থ্য টিপস" বিভাগে করেছেন অভিজ্ঞ সদস্য

1 উত্তর

0 জনের পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
করেছেন জ্ঞানী সদস্য

বয়স বৃদ্ধির সাথে সাথে গোপনাঙ্গ কালো হয়ে যায় ৷ এই কালো হওয়া থেকে রক্ষার  সহজ কিছু টিপস -


শসার রসঃ 

শসার রস যে কোন স্পর্শকাতর অঙ্গের দাগ দূর করার জন্য দারুণ উপকারী। এতে ত্বকের ক্ষতির কোন সম্ভাবনাই থাকে না। শসার রস লাগিয়ে রাখুন ২০/২৫ মিনিট। তারপর ধুয়ে ফেলুন। কয়েকদিন ব্যবহারেই উপকার পাবেন। 


আলুঃ

আলু রস লাগানো একটু ঝামেলার হলেই এটি উপকারী শসার রসের চাইতেও বেশী। আক্রান্ত স্থানে আলুর রস লাগিয়ে রাখুন। ৩০ মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন। এটাও ত্বকের কোন ক্ষতি করে না। 



লেবুর রসঃ

লেবুর রস হচ্ছে প্রাকৃতিক ব্লিচ। কিন্তু এটি সরাসরি স্পর্শকাতর অঙ্গে ব্যবহার না করাই উচিত, ত্বকে হতে পারে জ্বলুনি ও র‍্যাশ। লেবুর রসের সাথে শসার রস ও এক চিমটি হলুদ মিশিয়ে নিন। তারপর একে লাগান আক্রান্ত স্থানে। লেবুর ও হলুদ দাগছোপ দূর করবে আর শসা রক্ষা করবে ত্বককে। ২০ মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন। ধোয়ার সময় সাবান দেবেন না। 


দুধ ও মুলতানি মাটিঃ

কাঁচা দুধের সাথে মুলতানি মাটি ও গোলাপ জল মিশিয়ে পেস্ট করে নিন। এই মিশ্রণ ত্বকে লাগিয়ে রাখুন, শুকিয়ে গেলে ধুয়ে ফেলুন। এই প্যাক মুখেও ব্যবহার করতে পারেন। 


দই ও হলুদঃ

দইয়ের সাথে এক চিমটি হলুদ, সামান্য লেবুর রস ও চিনি মিশিয়ে নিন। এই মিশ্রণটি স্ক্রাবের মত ঘষে ঘষে লাগান, তবে খুব হালকা হাতে। তারপর রেখে দিন ২০ মিনিট। ধুয়ে ফেলুন ঠাণ্ডা পানি দিয়ে। 


কিছু দরকারি টিপসঃ


-যে কোন প্যাক লাগাবার পরই স্পর্শকাতর অঙ্গে ব্যবহার করবেন খুব ভালো কোন ময়েশ্চারাইজার। 

-এসব অঙ্গে নানান রকম রঙ ফর্সা করার ক্রিম মাখতে যাবেন না কখনোই। 

-খুব মাইলড পণ্য ব্যবহার করুন এসব অঙ্গে। বডি স্পত্রে বা ডিওডোরেন্ট কখনোই সরাসরি স্প্রে করবেন না। 

-নিয়মিত গোসল করুন এবং সেই সময়ে পরিষ্কার করুন। 

-এবিং ভালো ময়েশ্চারাইজার লাগান প্রতিদিন। 



মো. আব্দুল কুদ্দুস, আস্ক অ্যানসারস এর প্রতিষ্ঠাতা এবং পরিচালক৷ তিনি পেশায় একজন স্কুল শিক্ষক (আইসিটি) এবং ডিপ্লোমা প্যারামেডিকেল চিকিৎসক৷ তিনি মানুষের উপকার করতে ভালোবাসেন৷ আর তাই মানুষের সমস্যা সমাধানে পরামর্শ দিয়ে উপকারের স্বার্থে প্রতিষ্ঠা করেন আস্ক অ্যানসারস৷ ব্যক্তিগতভাবে তিনি একজন আদর্শবান সৎ মানুষ৷

এ রকম আরও কিছু প্রশ্ন

1 টি উত্তর
1 টি উত্তর
1 টি উত্তর
1 টি উত্তর
14 মার্চ "স্বাস্থ্য টিপস" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Miskat নতুন সদস্য
1 টি উত্তর
09 সেপ্টেম্বর 2019 "স্বাস্থ্য টিপস" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Aman অভিজ্ঞ সদস্য
0 টি উত্তর
18 মে "নারী স্বাস্থ্য" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Aman অভিজ্ঞ সদস্য
1 টি উত্তর
18 এপ্রিল "রোগ ও চিকিৎসা" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন অজ্ঞাতকুলশীল

5,888 টি প্রশ্ন

5,510 টি উত্তর

102 টি মন্তব্য

236 জন সদস্য

আস্ক অ্যানসারস বাংলা ভাষায় সমস্যা সমাধানের একটি অনলাইন কমিউনিটি। এখানে আপনি প্রশ্ন করতে পারবেন এবং অন্যদের প্রশ্নে উত্তর প্রদান করতে পারবেন ৷ আর অনলাইনে বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের জন্য উন্মুক্ত তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার কাজে অবদান রাখতে পারবেন ৷

জনপ্রিয় প্রশ্নসমূহ (গত 30 দিন)

  1. এম এম কিট খাওয়ার পর মিনস হয়ে আবার একদিন পর বন্ধ হয়ে গেছে। এখন কি করতে হবে?
  2. MM Kit খাওয়ানোর পর রক্ত বন্ধ হচ্ছে না কেন?
  3. এম এম কিট খেয়েছি প্রেগন্যানসি টেস্ট ছাড়াই, মাসিক কি হবেনা?
  4. একটি স্কুলে ছাত্রদের ডিল করবার সময় ৮, ১০ এবং ১২ সারিতে সাজানো যায়। আবার বর্গাকারেও সাজানো যায়। ঐ স্কুলে কমপক্ষে কত জন ছাত্র আছে?
  5. আস্ক অ্যানসারস অতিক্রম করলো পাঁচ হাজার প্রশ্নোত্তরের এক বিশাল মাইলফলক?
  6. প্রেগন্যানসি টেস্ট না করেই এম এম কিট খেয়েছি৷ এতে কোন সমস্যা হবে কি? মাসিক কি হবেনা?
  7. আমার তো ১০০০ পয়েন্ট হয়ে গেছে এবং এ মাস ও শেষ আজকে। আমি এখন ১০০ টাকা পাব তো। এবং তা কামনে কতৃপক্ষ আমাকে খুব দ্রুত জানান।?
  1. রাকিবুল

    5057 পয়েন্ট

    921 টি উত্তর

    452 টি গ্রশ্ন

  2. রাফাত

    4199 পয়েন্ট

    642 টি উত্তর

    939 টি গ্রশ্ন

  3. Md Noor Alom

    1763 পয়েন্ট

    337 টি উত্তর

    64 টি গ্রশ্ন

  4. Kuddus

    404 পয়েন্ট

    73 টি উত্তর

    35 টি গ্রশ্ন

3 জন অনলাইনে আছেন
0 জন সদস্য, 3 জন অতিথি
আজকে ভিজিট : 2242
গতকাল ভিজিট : 4680
সর্বমোট ভিজিট : 1213125
এখানে প্রকাশিত প্রশ্ন ও উত্তরের দায়ভার কেবল সংশ্লিষ্ট প্রশ্নকর্তা ও উত্তর দানকারীর৷ কোনপ্রকার আইনি সমস্যা Ask Answers বহন করবে না৷

করোনাঃ
বাংলাদেশে গত ২৪ ঘন্টায় নতুন করে করোনা আক্রান্ত ২,০২৯ জন সহ (গতকাল ছিল ১,৫৪১ জন) মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৪০,৩২১ জন এবং নতুন করে মৃত্যু ১৫ জন সহ সর্বমোট মৃত্যু ৫৫৯ জন এবং সুস্থ হয়ে ফিরেছেন সর্বমোট ৮,৪২৫ জন৷ * * * তাই করোনা ভাইরাস থেকে বাঁচতে নিজের ঘরেই অবস্থান করি ৷ নিজে বাঁচি, নিজের পরিবারকে বাঁচাই এবং অন্যকে বাঁচার সুযোগ দেই৷ * * *
...